এইভাবে চিকেন কারি বানালে হাত চাটবে বাচ্চা থেকে বুড়ো, রইলো রেসিপি

সপ্তাহের অন্যান্য দিন শান্তিতে বসে ভালো খাবার খাওয়ার সময় থাকে না বেশিরভাগ মানুষেরই হাতে। তাই তারা রবিবার দিন সারা সপ্তাহের ক্লান্তি মেটাতে মাছ-মাংসের তৃপ্তির ঢেকুর তুলতে চান। চিকেন কষা, চিকেন রেজালা এই ধরনের রান্না তো আপনারা খেয়েছেন। কিন্তু আজ আমরা আপনাদের জন্য চিকেন এর একটি অভিনব ও সহজ রেসিপি নিয়ে হাজির হয়েছি।

উপকরণ :- চিকেন,নুন, আদা বাটা, রসুন বাটা, শুকনো লঙ্কার গুঁড়ো, কাশ্মীরি লঙ্কার গুঁড়ো, টক দই, লেবু, তেল, পেঁয়াজ কুচি, কাজু, টমেটো বাটা, ধনে গুঁড়ো, গরম মসলার গুঁড়া, জিরেগুঁড়ো, চাট মসলা, কসৌরি মেথি, দুধ, ফ্রেশ, ক্রিম, ধনেপাতা কুচি, কাঁচা লঙ্কা জল।

প্রণালী :- প্রথমে চিকেনের টুকরোগুলোকে ভালো করে ধুয়ে নিতে হবে। এরপর একটি পাত্রে নুন, আদা বাটা, রসুন বাটা, কাশ্মীরি লঙ্কার গুঁড়ো, শুকনো লঙ্কাগুঁড়ো, টক দই, লেবুর রস দিয়ে কুড়ি থেকে ত্রিশ মিনিট মতো ভালো করে ম্যারিনেট করে রেখে দিতে হবে। এরপর একটি কড়াইতে তেল গরম করতে দিয়ে তাতে একে একে চিকেনের টুকরোগুলি দিয়ে দিতে হবে। চিকেন ভাজা হয়ে গেলে দশ-পনের মিনিট মতো ঢাকা দিয়ে রেখে দিতে হবে।

এরপর আরেকটি কড়াইতে তেল গরম করতে দিয়ে তাতে পেঁয়াজ কুচি ও কাজু ভেজে নিতে হবে। এরপর সেটিকে মিহি পেস্ট বানিয়ে নিতে হবে। এরপর ওই তেলেই আদা বাটা, রসুন বাটা, শুকনো লঙ্কার গুঁড়ো, কাশ্মীরি লঙ্কার গুঁড়ো, টমেটো বাটা, ধনেগুঁড়ো, গরম মসলার গুঁড়ো, জিরেগুঁড়ো, চাট মসলা ভাল করে মিশিয়ে কিছুক্ষণ নাড়াচাড়া করে তাতে পেঁয়াজ ও কাজুর মিশ্রণটি দিতে হবে।

এরপর কিছুটা কসৌরি মেথি দিতে হবে। তাতে আধ কাপ মত দুধ দিতে হবে। এরপর চিকেনের টুকরোগুলি কড়াইতে দিয়ে দিতে হবে। 3-4 মিনিট ভালো করে নাড়ানোর পর পরিমাণ অনুযায়ী গরম জল দিতে হবে। এরপর 8 থেকে 10 মিনিট ঢাকা দিয়ে রান্না করে নিতে হবে। এরপর কিছুটা ফ্রেশ ক্রিম দেওয়ার পর 3-4 মিনিট আবার ঢাকা দিয়ে রেখে দিতে হবে। ব্যস তৈরি হয়ে যাবে রেস্টুরেন্ট স্টাইলে এই অভিনব চিকেন রেসিপিটি।

Leave a Comment