বিশাল বড় সাপকে গিলে খাচ্ছে ছোট্ট ব্যাঙ, ভাইরাল ভিডিও

এখন ছোটো থেকে বড়ো প্রতিটি মানুষের হাতেই আছে কমপক্ষে একটি করে স্মার্টফোন। আর এই স্মার্টফোনেই লুকিয়ে আছে গোটা জগৎ অর্থাৎ সোশ্যাল মিডিয়া। বর্তমান সময়ে প্রায় সকলেই সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহার করে। এই যুগটাকে সোশ্যাল মিডিয়ার যুগ বললেও ভুল কিছু হবে না।

এখন সবকিছুই সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে পাওয়া যায়। যেমন- সাজ সরঞ্জামের জিনিস, পড়াশোনার সামগ্রী, নিত্যনৈমিত্তিক ব্যবহারের সব জিনিস, খাবার দাবার ইত্যাদি। সোশ্যাল মিডিয়া বলতে মূলত ইউটিউব, টুইটার, ইন্সটাগ্রাম, ফেসবুক কেই বোঝানো হয়। নিত্যদিন এত পরিমাণ মানুষ সোশ্যাল মিডিয়ায় নিজের অলস সময় কাটান যে কোনো না কোনো ভিডিও, ছবি, খবর প্রতিদিন ভাইরাল হতেই থাকে।

Bg Copy65 1, বিশাল বড় সাপকে গিলে খাচ্ছে ছোট্ট ব্যাঙ, ভাইরাল ভিডিও, বিশাল বড় সাপকে গিলে খাচ্ছে ছোট্ট ব্যাঙ, ভাইরাল ভিডিও

সাপ ভীতু সরীসৃপ প্রাণী। কিন্তু এই ভীতু প্রাণীকেই মানুষ ভীষণ ভয় পায়। এরা কানে শুনতে পায় না। কিন্তু মাটির সাথে গভীর সম্পর্ক হওয়ার কারণে নিঃশ্বাসের আওয়াজ পর্যন্ত অনুভব করতে পারে। তাই নিজেদের আত্মরক্ষা করতে এরা হামলা করে। এই প্রাণী পায়ের আওয়াজ ফলো করতে পারে, অনুভব করতে পারে যেকোনো কিছুর শব্দ। সাপ মানেই বিষধর নয়। বেশকিছু সাপ রয়েছে বিষহীন। কিন্তু অনেকেই বিষধর আর বিষহীন সাপের পার্থক্য করতে পারে না।

Bg Copy66 1, বিশাল বড় সাপকে গিলে খাচ্ছে ছোট্ট ব্যাঙ, ভাইরাল ভিডিও, বিশাল বড় সাপকে গিলে খাচ্ছে ছোট্ট ব্যাঙ, ভাইরাল ভিডিও

গরমকালে ব্যাং কাদার তলায় চামড়ার স্তরের মাধ্যমে ঢুকে থাকে। বর্ষাকালে আবার কাদা থেকে বেরিয়ে এসে প্রথমেই শিকার করা শুরু করে। এরা ইঁদুর, পাখির পাশাপাশি অন্য ব্যাং কেউ খায়। প্রজননের সময় স্ত্রী ব্যাং কে আকৃষ্ট করার জন্য এক অদ্ভুত আওয়াজ করে এরা। এদের বলা হয় বুল ফ্রগ। সন্তানদের জন্য খুবই স্নেহময় হয় এরা। নিজের সন্তানকে রক্ষা করে।

ছোট ছোট ব্যাঙাচি গুলিকে অনেকেই খেতে চায়। কিন্তু পুরুষ ব্যাং তাদের রক্ষা করে। প্রজননের সময় স্ত্রী ব্যাং কে আকৃষ্ট করতে দুই পুরুষ ব্যাঙ লড়াই করে। এমনই দুই পুরুষ ব্যাঙের লড়াইয়ের ভিডিও ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। যা দেখে অবাক হয়েছেন বহু নেট নাগরিক। তারা আরও এই ধরনের ভিডিও দেখার আগ্রহ প্রকাশ করেছেন। এছাড়াও সাপের সাথেও লড়াই করতে দেখা গেছে।

Leave a Comment